Home কক্সবাজার পেকুয়ায় অজ্ঞাত আগুণে দুই স-মিল ও বসতবাড়ি পুড়ে ছাই

পেকুয়ায় অজ্ঞাত আগুণে দুই স-মিল ও বসতবাড়ি পুড়ে ছাই

110
SHARE

মো: ফারুক,পেকুয়া(১৪ মার্চ) :: কক্সবাজারের পেকুয়ায় বিদ্যুতের আগুনে মুকসুদুল হক নামের এক ব্যক্তির বসতবাড়ি সম্পূর্ন ভস্মিভূত হয়েছে। যার ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ ৮ লক্ষাধিক টাকা বলে জানিয়েছেন পরিবারের পক্ষ থেকে আরিফুল ইসলাম।

মঙ্গলবার (১৩ মার্চ) রাত ১০ টায় সদর ইউনিয়নের শেখের কিল্লা ঘোনায় অগ্নিকান্ডের ঘটনাটি ঘটে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাহাবুবউল আলম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সহযোগিতার আশ^াস দিয়েছে।

এছাড়া একই রাতে ভোর সাড়ে ৪টার দিকে পেকুয়া বাজারের জনবহুল এলাকায় প্রতিষ্ঠিত কাঠের দোকান সংলগ্ন দুইটি স-মিল পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। যার ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ ১০ লক্ষাধিক টাকার বেশি বলে জানিয়েছেন ভুক্তভোগিরা। কি কারণে আগুণের সূত্রপাত কেউ অবগত নই বলেও জানান ব্যবসায়ীরা।

মুকসুদুল হকের পুত্র মো: আরিফুল ইসলাম বলেন, বিগত ১বছর ধরে পল্লী বিদ্যুতের কার্যালয়ে কার্যালয়ে দরখাস্তসহকারে তৎবীর করেছি বাড়ির উপরের তারটি সরানোর জন্য। নয়তোবা খুটিটি সরিয়ে ফেলার জন্য। এবিষয়ে পল্লী বিদ্যুত কর্তৃপক্ষ আমাদের কাছ থেকে দেড় লাখ দাবী করে। আমরা অসহায় এতোটাকা কোথায় পাব।

সর্বশেষ ১৩ মার্চ রাতে বিদ্যুতের খুটির তার থেকে আগুণের সূত্রপাত হলে পুরো বাড়িতে আগুণ ধরে যায়। কোন মতে বাড়ির লোকজন বের হতে পারলেও মূহর্তে পুরো বসতবাড়ি পুড়ে ছাই হয়ে যায়। স্থানীয়রা অনেকবার পেকুয়া ফায়ার সার্ভিসকে খবর দিলেও তারা কর্ণপাত করেনি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাহাবুবউল আলম বলেন, মুকসুদুল হকের পুরো বসতবাড়ি পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। তাৎক্ষনিকভাবে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করি। এ বিষয়ে জেলা প্রশাসক মহোদয় তাদের সার্বিক খোঁজখবর নিয়েছেন। প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাদের সহযোগিতা করা হবে। বাজারেও আগুণে কারণে দুইটি স-মিল পুড়ে গেছে বলে জানতে পেরেছি।

SHARE