Home খেলা আইপিএলে জয় পেল মুস্তাফিজের মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স

আইপিএলে জয় পেল মুস্তাফিজের মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স

236
SHARE

কক্সবাংলা ডটকম(১৭ এপ্রিল) :: নিজের দিনটা মোটেও ভালে যায়নি মুস্তাফিজের। কিন্তু ঘরের মাঠে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরুর বিপক্ষে বড় জয় পেয়েছে তার দল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। এবারের আইপিএলের প্রথম জয়ও। নিজে ভালো বল করতে না পারলেও এই জয়ে খুশি মুস্তাফিজুর রহমান।

ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার রাতে মুম্বাই নির্ধারিত ২০ ওভারে ২১৩ রান তোলে। জবাবে কোহলির বেঙ্গালুরু নির্ধারিত ২০ ওভারে তুলতে পারে ১৬৭ রানে। কোহলি-ভিলিয়ার্সরা হারে ৪৬ রানে।

এর আগে তিন ম্যাচেই উইকেট পেয়েছিলেন বাংলাদেশের কাটার মাস্টার মুস্তাফিজ। কিন্তু জিততে পারেনি তার দল। এরমধ্যে দ্বিতীয় ও তৃতীয় ম্যাচে দারুণ বল করেন তিনি। কিন্তু ব্যাঙ্গালুরুর বিপক্ষে খরুচে ছিলেন ফিজ। ৪ ওভার হাত ঘুরিয়ে বাংলাদেশের এই পেসার দেন ৫৫ রান। ওভার প্রতি রান দিয়েছেন ১৩.৭৫ করে।

তবে নিজে খারাপ করলেও দল এবারের আসরে প্রথম জয় পেয়েছে। আর তাতেই খুশি মুস্তাফিজ। ম্যাচ শেষে তিনি তার নিজস্ব ফেসবুক পেজে এ নিয়ে খেলেন, ‘ভালো দলের বিপক্ষে বড় জয়। আশা করছি আমরা এই জয়ের ধারা ধরে রাখতে পারবো।’

টস হেরে এদিনও প্রথমে ব্যাট করতে হয় মুম্বাইকে। প্রথম ওভারে উমেশ যাদবের বলে ২ উইকেট হারিয়ে বসে মুম্বাই। তবে অধিনায়ক রোহিত শর্মার ৫২ বলে ৯৪ রানের এক ঝড়ো ইনিংস এবং ইভান লুইসের ৪২ বলে ৬৫ রানের উপর ভর করে ২১৩ রান তোলে মুম্বাই। ব্যাঙ্গালুরুর হয়ে দুটি করে উইকেট নেন উমেশ যাদব এবং কোরি অ্যান্ডারসন।

জবাব দিতে গিয়ে ‘চেজ মাস্টার’ খ্যাত কোহলি দারুণ শুরু করেন। এক প্রান্তে অপরাজিত থেকে ৬২ রানে ৯২ রানের চোখ ধাঁধাঁনো ইনিংস খেলেন ভারত অধিনায়ক। কিন্তু দলের অন্য বাঘা বাঘা ব্যাটসম্যানরা দাঁড়াতেই পারেননি। দলের পক্ষে আর কেউ পৌঁছেতে পারেননি দুই অঙ্কে।

কুইন্টন ডি কক ১৯, ডি ভিলিয়ার্স ১ এবং কোরি অ্যান্ডারসন কোন রান না করে ফিরে যান। শেষ পর্যন্ত ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৬৭ রান তুলতে পারে ব্যাঙ্গালুরু। অপরাজিত থেকেও কোহলিকে মাঠ ছাড়তে হলো মাথা নিচু করে। সঙ্গী হলো ৪৬ রানের পরাজয়।

SHARE