Home কক্সবাজার রামুর দৌছড়ি খালে সাতাঁর কাটতে গিয়ে দশম শ্রেণির ছাত্র নিখোঁজ

রামুর দৌছড়ি খালে সাতাঁর কাটতে গিয়ে দশম শ্রেণির ছাত্র নিখোঁজ

58
SHARE

মাঈনদ্দিন খালেদ,নাইক্ষ্যংছড়ি(১১ জুন) :: রামুর কচ্ছপিয়া ইউনিয়নের দৌছড়ি খালের তেইল্ল্যচুরাকুমে খেলারছলে সাতাঁর কাটতে গিয়ে এক মাদ্রাসার ছাত্র নিখোঁজ হয়েছে।তার নাম নুরুল আলম (১৯)। সে দৌছড়ি উত্তর কূল গ্রামের মো: ইলিয়াসের ছেলে। স্থানীয় ফইজুল উলুম ফাজিল ডিগ্রি মাদ্রাসার দশম শ্রেনির ছাত্র।

সোমবার সকাল ১০টায় এ ঘটনার পর থেকে তার শিক্ষক,তার মাদ্রাসার শিক্ষার্থী ও দৌছড়ির ৪ গ্রামের মানুষের মাঝে শোকের ছায়াঁ নেমে আসে। পাশাপাশি নিখোঁজকে উদ্ধারে চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে এলাকাবাসি।

প্রত্যক্ষদর্শী ও নিখোঁজ নুরুল আলমের বন্ধু মো: শাহীন জানান, তারা তিন বন্ধু মিলে সোমবার সকাল সাড়ে ৯ টার দিকে দৌছড়িখালের এ অংশে গুটি গুটি বৃষ্টির পরে দাড়িয়ে কথা বলছিল। কিছুক্ষণ পর তিন জনই খালের তীরে দাঁিড়য়ে খাল থেকে লাকড়ি ধরা শুরু করে। এরও একটু পরে নিখোঁজ নুরুল আলমের প্রস্তাবে খেলারছলে সাতাঁর প্রতিযেগিতা দেয় এ তিন বন্ধু।

এতে প্রথমে খালের পশ্চিম পাড় থেকে গলাচিপা অংশে সাতঁিরয়ে পার হয়ে যায় নুরুল আমিন। দ্বিতীয় প্রতিযোগি ছিল নুরুল আলম। সে সাতঁরিয়ে মাঝখালে গিয়ে পানির চোঁ পাকে ঘুরতে ঘুরতে এক র্পযায়ে তলিয়ে যায়। নিখোঁজ হয় সেই ১০ টায়।

ঘটনার পর দুপুর সাড়ে ১২ টায় ককসবাজার থেকে ফায়ার সার্ভিসের একটি টিম ঘটনাস্থলে গেলেও তারা ফেরত যান বিফল হয়ে। সব চেষ্টা ব্যর্থ হয়ে চট্টগ্রাম থেকে ডুবুরি নিয়ে এসে যুবক নুরুল আলমকে উদ্ধারের চেষ্টা করা হবে জানালেন ফায়ার সার্ভিসের টিম লিডার নিবাস বড়–য়া।

এদিকে স্থানীয় সমাজ সেবক মো: আলম জানান,এ ঘটনার পর থেকে নুরুল আলমের পরিবারে নেমে আসে চরম হতাশা ও শোকের ছায়াঁ। তিনি আরো জানান,এলাকার লোকজন নিখোঁজ নুরুল আলমের হদিসে প্রানান্ত চেষ্টা চালাচ্ছে।

SHARE