Home আন্তর্জাতিক মুখোমুখি অবস্থানে যুক্তরাষ্ট্র ও তুরস্ক

মুখোমুখি অবস্থানে যুক্তরাষ্ট্র ও তুরস্ক

78
SHARE

কক্সবাংলা ডটকম(৪ আগষ্ট) :: তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত কাভুসোগলু গতকাল শুক্রবার মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেওকে হুমকি ও নিষেধাজ্ঞায় কাজ হবে না বলে জানিয়ে দিয়েছেন। এক মার্কিন যাজককে আটক করার পর যুক্তরাষ্ট্র তুরস্কের মন্ত্রীদের পাল্টা নিশানা বানালে তিনি এ কথা বলেন। খবর এএফপি।

সিঙ্গাপুরে দুই মন্ত্রীর বৈঠকের পর কাভুসোগলু বলেন, আমরা প্রথম থেকেই বলেছি, অন্য পক্ষের হুমকিমূলক ভাষা ও নিষেধাজ্ঞা কোনো ফল বয়ে আনবে না। আমরা আজ আবার সে কথাই পুনর্ব্যক্ত করেছি।

গত সপ্তাহে প্রায় দুই বছর কারাভোগের পর যাজক এন্ড্রু ব্রুনসনকে গৃহবন্দি করা হয়, তবে মার্কিন কর্মকর্তারা আশা করেছিলেন তাকে মুক্তি দেয়া হবে।

আঙ্কারার দৃষ্টিতে জঙ্গি এমন দুটি গ্রুপের হয়ে কাজ করার অভিযোগ আনা হয়েছে যাজক ব্রুনসনের বিরুদ্ধে। এ দুই গ্রুপ হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস করা ফেতহুল্লাহ গুলেনের দল ও কুর্দিস্তান ওয়ার্কার্স পার্টি। তবে ইজমির শহরের একটি প্রোটেস্ট্যান্ট গির্জার প্রধান ব্রুনসন এ অভিযোগ অস্বীকার করেন। অভিযোগ প্রমাণিত হলে তার ৩৫ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে। ১২ অক্টোবর তার মামলার পরবর্তী শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

এ মামলা নিয়ে এখন ন্যাটোর দুই মিত্র আঙ্কারা ও ওয়াশিংটনের মধ্যে দ্বন্দ্ব চলছে। বুধবার এ মামলার পরিপ্রেক্ষিতে যুক্তরাষ্ট্র তুরস্কের বিচার ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীদের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে।

বৈঠকের আগে পম্পেও সাংবাদিকদের বলেছিলেন, তিনি আশা করছেন এ নিষেধাজ্ঞার ফলে তুরস্ক বুঝবে আমরা ব্যাপারটি অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে নিয়েছি।

বৈঠকের পর তুরস্কের মন্ত্রী একে ‘খুবই গঠনমূলক’ আখ্যা দিলেও সতর্ক করে বলেন, এক বৈঠকেই সব সমস্যার সমাধান হবে না।

SHARE