Home জীবনযাত্রা ভাল থাকতে চাইলে যা করবেন না

ভাল থাকতে চাইলে যা করবেন না

161
SHARE

কক্সবাংলা ডটকম(১ সেপ্টেম্বর) :: ”কেমন আছেন?”-এর উত্তরে আজকাল ”ভাল আছি”র বদলে যে কথাটা বেশিরভাগ সময় শুনতে হয়, সেটা হলো, ”এই চলে যাচ্ছে”। একথা বলার অপেক্ষা রাখে না বর্তমানে ডিপ্রেশন মহামারির আকার নিয়েছে।

প্রতিযোগিতার বাজারে ছুটতে গিয়ে আনন্দ, খুশী সবটাই হারিয়ে ফেলছেন অনেকেই। তবে আপনি হয়ত জানলে অবাক হবেন, নিজেকে ভাল রাখতে পারেন আপনিই। শুধু মেনে চলুন কয়েকটা জিনিস। মিলিয়ে নিন নিচের তালিকাটা। আর ব্যস, মন খারাপের মুশকিল আসান পেয়ে যাবেন হাতের মুঠোতেই।

সময়ের গুরুত্ব বুঝুন। অযথা সময় নষ্ট করবেন না। সময় আছে এমনটা ভেবে সব কাজ ফেলে রাখা মোটেই বুদ্ধিমানের কাজ নয়। মাথায় রাখবেন প্রতিটা সময়ই খুব গুরুত্বপূর্ণ।

নেতিবাতক মানুষ এড়িয়ে চলুন। এমন অনেক মানুষ আছেন যাঁরা সমস্ত পরিস্থিতিতেই নেতিবাচক কথা বলতে থাকেন। এতে যেকোনও পরিস্থিতি আরও জটিল হয়। কাজেই যাঁরা নেতিবাচক কথা বলেন তাঁদের সঙ্গে না থাকাই ভাল। এতে আপনার খুশীর ব্যঘাত ঘটতে পারে।

অতীত ভুলে বর্তমানে বাঁচুন। অতীতের না পাওয়ার কথাগুলো ভুলে যান, এতে ভাল থাকবেন। যা হয়ে গেছে তা নিয়ে অতিরিক্ত ভাবনাচিন্তা করলে দুঃখ বাড়বে বই কমবে না। যা গেছে তা যাক, অতীতের ঘটনা থেকে শিক্ষাটুকু নিয়ে বর্তমানের দিনগুলো আরও সুন্দর করে কাটান, ভবিষ্যতও সুন্দর হবে এভাবেই।

কারও সঙ্গে নিজের তুলনা করবেন না। প্রত্যেকের একটা আলাদা আলাদা সত্ত্বা থাকে, প্রত্যেকেই নিজের মতো করে সুন্দর। অযথা অন্যের সঙ্গে নিজের তুলনা করে হীনম্মন্যতায় ভোগা বোকামি ছাড়া আর কিছুই নয়। এতে আনন্দে থাকতে পারবেন না কোনও দিন। কাজেই আপনার মধ্যেকার ইতিবাচক দিকটা খুঁজে আপনি যেমন, তেমনটাই মেনে নিতে শিখুন।

কাউকে ছোটো করবেন না। অন্যকে হেনস্থা করে সাময়িক সুখ পাওয়া গেলেও তা কিন্তু চিরস্থায়ী নয়। আপনিও ওই ব্যক্তির জায়গায় থাকতে পারেন কাল, কাজেই অন্যের সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক বজায় রাখুন। তাঁদের সাহায্য করুন, তাঁরাই প্রয়োজনে আপনাকে ভাল থাকতে সাহায্য করবেন। বিপদে পাশে পাবেন বন্ধুদের।

SHARE