Home কক্সবাজার কক্সবাজার পৌরসভার সেবা প্রার্থীরা যেন কষ্ট না পায় : মেয়র মুজিব

কক্সবাজার পৌরসভার সেবা প্রার্থীরা যেন কষ্ট না পায় : মেয়র মুজিব

130
SHARE

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি(১৭ সেপ্টেম্বর) :: “বেশি কথা নয়, বেশি কাজ চাই” কারন কথায় নয় আমি ভাল কাজকেই বিশ্বাস করি সবসময়। যারা সততার সাথে ভাল কাজ করে তারা একদিন ভাল পুরস্কার পাবেন।

পাশাপাশি প্রশাসনিক কর্মকর্তা-কর্মচারীরা দায়িত্বপালনের ক্ষেত্রে কোন ধরণের অনিয়ম কিংবা দুর্ণীতি করেছেন এমন অভিযোগের প্রমাণ পাওয়া গেলে পুরস্কার নয়, তীরস্কার হিসেবে তার বিরুদ্ধে কঠিন শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে হুঁশিয়ারী দিয়েছেন কক্সবাজার পৌরসভার নবনির্বাচিত মেয়র মুজিবুর রহমান।

রোববার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে পৌরসভা সম্মেলন কক্ষে প্রশাসন বিভাগে কর্মরত কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সাথে প্রথম মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

পৌরসভার সচিব রাসেল চৌধুরীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় অন্যান্যদের মধ্যে নির্বাহী প্রকৌশলী ইঞ্জিনিয়ার নুরুল আলম, হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা জয়নাল আবেদীন, প্রশাসনিক কর্মকর্তা মো. খোরশেদ আলম, কর নির্ধারক খালেদ আবেদীন খোকন ও কর আদায়কারী আবদুল মাবুদ রাজনসহ প্রশাসন বিভাগের সকল কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

মতবিনিময়কালে সকল স্থরের দায়িত্বশীল কর্মকর্তাদের গুরুত্বপূর্ণ মতামত শুনেন মেয়র মুজিবুর রহমান। এসময় মেয়র আরো বলেন, কক্সবাজার পৌরসভাকে দেশের সকল পৌরসভার চেয়ে আলাদা মডেল হিসেবে গড়ে তোলতে সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীদের আন্তরিকভাবে কাজ করতে হবে। পরে পৌরসভা মিলনায়তনে সবার সাথে ফটোসেশনে মিলিত হন মেয়র।

এর আগে ব্র্যাক আরবান ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রাম (ইউডিপি) কক্সবাজার কর্তৃক আয়োজিত এম্পাওয়ার প্রকল্পের পরিচিতি ও দরিদ্র জনগোষ্ঠির ক্ষুদ্র উদ্যোক্তারদের মধ্যে ব্যবসায়ীক সহায়তা প্রদান করেন মেয়র মুজিবুর রহমান।

এতে উপস্থিত ছিলেন, ব্র্যাক আরবান ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রামের প্রোগ্রাম ম্যানেজার সজল কুমার সাহা, ইনফাস্ট্রাকচার ম্যানেজার জিয়াউল লতিফ, রিজিওনাল কো-অর্ডিনেটর মো. শামীম আল মামুন, ব্র্যাক জেলা প্রতিনিধি মো. জাহাঙ্গীর আলম, পৌরসভার সচিব রাসেল চৌধুরীসহ সকল কাউন্সিলরবৃন্দ।

অনুষ্ঠান শেষে কক্সবাজার পৌর এলাকার দরিদ্র জনগোষ্ঠির ক্ষুদ্র উদ্যোক্তারদের মধ্যে ব্যবসায়ীক সহায়তা হিসেবে প্রাথমিক পর্যায়ে ৫৬ জনকে উদ্যোক্তারদের মাঝে সেলাই মিশনসহ কাপড় বিতরণ করা হয়।

SHARE