কক্সবাজার ৪টি পৌরসভার ৭১টি ইউনিয়নের সার্ভার সিস্টেম অবিলম্বে খুলে দেয়া হবে : জেলা প্রশাসক

Picture.jpg

বার্তা পরিবেশক(৫ ডিসেম্বর) :: প্রায় দেড় বছর ধরে বন্ধ থাকা কক্সবাজার, চকরিয়া, মহেশখালী ও টেকনাফ- এ চারটি পৌরসভা ও ৭১টি ইউনিয়নের সার্ভার সিস্টেম অবিলম্বে খুলে দেয়া হবে।

যথাসম্ভব দ্রুততম সময়ে সার্ভার ষ্টেশন গুলো খুলে দিয়ে কক্সবাজার জেলার প্রায় ২৭ লাখ মানুষের নাগরিক অধিকার ফিরিয়ে দেয়ার জন্য সিভিল সোসাইটিজ ফোরাম কক্সবাজারের স্মারকলিপি দেয়ার সময় জেলা প্রশাসক মোঃ কামাল হোসেন উপরোক্ত বক্তব্য রাখেন।

স্মারকলিপিতে বলা হয় সার্ভার সিষ্টেম দীর্ঘ সময় বন্ধ থাকার কারণে জন্ম মৃত্যু সনদ, জাতীয় পরিচয়পত্র ইত্যাদি গুরুত্বপূর্ণ সেবা প্রদান বন্ধ রয়েছে। যার কারণে ভোটার হওয়া, বিদ্যালয়ে ভর্তি, বিয়েশাদী, জায়গাজমি ক্রয়বিক্রয় সহ অনেক গুরুত্বপূর্ণ কর্মকান্ড বন্ধ রয়েছে। এগুলো মানুষের নাগরিক অধিকার।

এ নাগরিক অধিকার গুলো বন্ধ রেখে জনগনকে চরম দুর্ভোগ থেকে মুক্তি দেয়ার জন সিভিল সোসাইটি ফোরাম কক্সবাজার গতকাল বুধবার সকালে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে স্মারকলিপি প্রদান করে। তার কপি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে কপি দেয়া হয়।

স্মারকলিপি প্রদানের সময় উপস্থিত ছিলেন- প্রধান উপদেষ্টা প্রফেসর এম.এ.বারী, সভাপতি ফজলুল কাদের চৌধুরী, সভাপতি মন্ডলীর সদস্য যথাক্রমে- মাহমুদুল হক চৌধুরী, সাইফুল ইসলাম চৌধুরী, আ.ন.ম.হেলাল উদ্দিন, মকবুল আহমদ, বোরহান উদ্দিন আক্ন্দ, অধ্যাপক আনোয়ারুল হক, এড. আ.জ.ম মঈন উদ্দিন, সাইফুল ইসলাম চৌধুরী কলিম, হেলেনাজ তাহেরা, এড. আবদুর রহিম, রবীন্দ্র বিজয় বড়–য়া, সমীর পাল, মিহির ধর, মৃদুল দাশ।

সম্পাদক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার কানন পাল, সম্পাদক পরিষদের সদস্য যথাক্রমে- মোর্শেদুর রহমান খোকন, ইব্রাহিম খলিল মামুন, ফয়সল মাহমুদ সাকিব, প্রবীর বড়–য়া, আবু জাফর ছিদ্দিকী, এবি ছিদ্দিক খোকন, এইচএম নজরুল, হেলাল উদ্দিন সিকদার, দীপন বিশ্বাস, বিপ্লব কান্তি দে, মানষী বড়–য়া, তাজমিন মুন্নি ও রেশমিন সুলতানা প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

Share this post

PinIt
scroll to top