Home আন্তর্জাতিক উপগ্রহ চিত্রে ক্ষেপণাস্ত্র তৈরি করছে উত্তর কোরিয়া ?

উপগ্রহ চিত্রে ক্ষেপণাস্ত্র তৈরি করছে উত্তর কোরিয়া ?

98
SHARE

কক্সবাংলা ডটকম(৬ ডিসেম্বর) :: লম্বা পাল্লার ক্ষেপণাস্ত্রের উপস্থিতির ইঙ্গিত উপগ্রহ চিত্রের৷ উত্তর কোরিয়ার পার্বত্য এলাকার একেবারে অভ্যন্তরে গোপন সামরিক ঘাঁটির সন্ধান মিলেছে৷ তবে ঠিক কোনখানে ওই ঘাঁটি অবস্থিত তার খোঁজ এখনও মেলেনি৷ ফলে এই ঘাঁটির কাজকর্ম ও সক্রিয়তা সম্পর্কে সন্দিহান মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র৷

বুধবার কিছু উপগ্রহ চিত্র প্রকাশ করে ওয়াশিংটন ডিসি৷ এই চিত্রগুলি প্রকাশ পায় একটি আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে৷ তারপর থেকেই শোরগোল পড়েছে৷ তাহলে কী ফের ক্ষেপণাস্তর হামলার প্রস্তুতি চালাচ্ছে উত্তর কোরিয়া? প্রশ্ন তুলেছে আমেরিকা৷ যদিও ছবিটি স্পষ্ট না হওয়ায় সরাসরি এই প্রশ্ন তুলতে চাইছে না ডোনাল্ড ট্রাম্প সরকার৷

নিরস্ত্রীকরণের কথা মুখে বললেও, উত্তর কোরিয়া সেই রাস্তায় হাঁটছে না৷ এমন অভিযোগে আগেও বেশ কয়েকবার করেছিল আমেরিকা৷ কিম জন উন গোপনে ক্ষেপণাস্ত্র ও মিসাইল পরীক্ষা চালাচ্ছেন বলেও সন্দেহ প্রকাশ করেন ট্রাম্প৷ তবে যথাযথ প্রমাণ হাতে আসেনি৷ এবারের উপগ্রহ চিত্রে বেশ কয়েকটি সন্দেহজনক গতিবিধি লক্ষ্য করা গিয়েছে৷ তবে সেই গোপন ঘাঁটির সঠিক অবস্থান জানাতে পারেনি ওই উপগ্রহ চিত্র৷ ফলে ধন্দ্ব রয়েই গিয়েছে৷

তবে উত্তর কোরিয়ার সক্রিয় মিসাইল বেস ইয়নজিওডং যে সক্রিয় বরাবর, তার প্রমাণ আগেও পেয়েছিল আমেরিকা৷ এরই সাথে একটি নতুন এলাকায় গতিবিধি লক্ষ্য করা গিয়েছে৷

গত নভেম্বরেই সেদেশের তরফ থেকে জানানো হয়েছে একটি ‘হাই টেক ট্যাকটিক্যাল’ অস্ত্রের পরীক্ষা সফল হয়েছে৷ তবে ঠিক কী সেই অস্ত্র, তা খোলসা করে জানানো হয়নি উত্তর কোরিয়ার পক্ষ থেকে৷

কোরিয়া উপদ্বীপে এই সামরিক পরীক্ষা করা হয়েছে বলে সেদেশের ইয়ুনহ্যাপ নিউজ এজেন্সি জানিয়েছে৷ কোরিয়ান সেন্ট্রাল ব্রডকাস্টিং স্টেশনকে উদ্ধৃত করে এই তথ্য দিয়েছে সংবাদ সংস্থা ইয়ুনহ্যাপ৷ তবে এই পরীক্ষার সঠিক স্থান কোনটি ছিল, তাও জানানো হয়নি৷ নেতা কিমের তত্ত্বাবধানে পরীক্ষাটি সম্পূর্ণ হয়েছে৷

রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে একদিকে দক্ষিণ কোরিয়ার সঙ্গে শান্তি চুক্তির হাত বাড়িয়েছে উত্তর কোরিয়া৷ অন্যদিকে এই অস্ত্র পরীক্ষা দুদেশের সম্পর্কে প্রভাব ফেলতে পারে৷ উল্লেখ্য দিন কয়েক আগেই দক্ষিণ কোরিয়া জানিয়েছিল দুই দেশের সীমান্তবর্তী গ্রাম পানমুনজম থেকে অস্ত্র ও মাটিতে পোঁতা ল্যাণ্ডমাইন সরিয়ে নেওয়া হবে৷ সেই চুক্তিতে মাথায় রেখেই সীমান্ত থেকে নাকি ল্যান্ডমাইন সরানোর কাজ শুরু করেছে উত্তর কোরিয়া৷

SHARE