শুক্রবার ৩০শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম

শুক্রবার ৩০শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম

চকরিয়ায় কর্মহীন ২০জন সংবাদপত্র হকারকে খাদ্য সামগ্রী তুলে দিলেন ইউএনও

বুধবার, ০১ এপ্রিল ২০২০
59 ভিউ
চকরিয়ায় কর্মহীন ২০জন সংবাদপত্র হকারকে খাদ্য সামগ্রী তুলে দিলেন ইউএনও

এম.জিয়াবুল হক,চকরিয়া(১ এপ্রিল) :: জনসেবার জন্য প্রশাসন, সরকারের জনপ্রশাসন মন্ত্রানালয়ের জনকল্যাণ মূলক এই প্রবাদটি সত্যি প্রমাণিত করেছেন কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নুরুদ্দিন মুহাম্মদ শিবলী নোমান।

তিনি করোনা সংক্রমণে কর্মহীন চকরিয়া উপজেলার ২০জন সংবাদপত্র হকারের পাশে দাঁড়িয়েছেন। খবরা-খবর নিয়েছেন তাদের জীবন-জীবিকার। হাতে তুলে দিয়েছেন খাদ্য সামগ্রী।

জানা গেছে, মহামারী করোনার কারণে কর্মহীন হয়ে পড়েছেন কক্সবাজারের চকরিয়ায় মাঠপর্যায়ে পত্রিকা বিক্রেতা ২০ জন সংবাদপত্র হকার। গণপরিবহন থেকে দোকানপাট সবকিছু বন্ধ থাকায় বন্ধ হয়ে গেছে পত্রিকা ব্যবসা। এতে একসপ্তাহ ধরে চরম খাদ্যসংকটে পড়েছেন ২০ জন হকারের পরিবার। এই অবস্থায় খবর পেয়ে চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নূরুদ্দীন মুহাম্মদ শিবলী নোমান এসব হকারের পাশে দাঁড়িয়েছেন। খাদ্য সহায়তা পেয়ে এতে এসব হকার পরিবারে হাসি ফুটেছে।

চকরিয়া সংবাদপত্র হকার সমিতির সভাপতি মো.মনির উদ্দিন বলেন, ‘পত্রিকা বিক্রি করতে না পারায় আমাদের পরিবারে চরম খাদ্য সংকট দেখা দিয়েছে। বিষয়টি আমরা সাংবাদিকের মাধ্যমে উপজেলা প্রশাসন এবং জনপ্রতিনিধিদের জানাই।

খবরটি শোনা মাত্র ইউএনও তাৎক্ষণিক আমাদেরকে পৃথকভাবে চাল, ডাল, তেল, পেঁয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী আমাদের হাতে তুলে দেন। এতে অন্তত বেশ কয়েকদিন আমাদের পরিবার সদস্যদের খাবার নিয়ে দুশ্চিন্তা করতে হবে না। পাশাপাশি সাংবাদিক ভাইদেরও ধন্যবাদ জানাচ্ছি দুর্দিনে আমাদের পাশে থাকার জন্য।’

ইউএনও নূরুদ্দীন মুহাম্মদ শিবলী নোমান বলেন, ‘কর্মহীন ২০ জন হকারের দুর্দিনের সংবাদটি সাংবাদিকের মাধ্যমে জানার পর পরই ত্রাণের ব্যবস্থা করা হয়। একইসঙ্গে তারা যাতে নিয়মিতভাবে সরকারী সহায়তা পায় সেজন্য পৌরসভার মেয়রকেও বিশেষ ভিজিএফ কার্ডের ব্যবস্থা করতে বলা হয়েছে। যাতে হকারগুলোর পরিবার সদস্যরা একবেলাও অভুক্ত না থাকেন।’


চকরিয়ায় মুক্তিযোদ্ধা পরিবার ও কর্মহীন মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

এবার করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের প্রভাবে কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার বিভিন্ন জনপদে ঘরবন্দি থাকা মুক্তিযোদ্ধা পরিবার ও কর্মহীন শ্রমজীবি মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সহসভাপতি আলহাজ ফজলুল করিম সাঈদী। বুধবার ১ এপ্রিল তিনি উপজেলার ডুলাহাজারা, খুটাখালী, বিএমচর ইউনিয়নে কর্মহীন শ্রমজীবি মানুষের হাতে এবং চকরিয়া পৌরসভার হালকাকারা এলাকায় মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের হাতে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন উপজেলা চেয়ারম্যান।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনার আলোকে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের আশঙ্কায় থাকা কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার ১৮টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভা এলাকার অচ্ছ্বল ও দরিদ্র পরিবারের মানুষের জন্য ব্যক্তিগত উদ্যোগে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ অব্যাহত রেখেছেন চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ ফজলুল করিম সাঈদী।

গত ২৭ মার্চ শুক্রবার থেকে প্রতিদিন উপজেলার তিনশতাধিক মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করে আসছেন। সর্বশেষ বুধবার তিনি উপজেলার ডুলাহাজারা, খুটাখালী, বিএমচর ইউনিয়নে কর্মহীন শ্রমজীবি মানুষের হাতে এবং চকরিয়া পৌরসভার হালকাকারা এলাকায় মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের হাতে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন।

জানা গেছে, করোনা ভাইরাসের প্রভাবের কারণে সরকারি নির্দেশে কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলা ও পৌরসভা এলাকায় বেশিরভাগ শ্রমিকজীবি মানুষ ঘরবন্দি হয়ে থাকায় বেশি বেকায়দায় পড়েছেন। অপরদিকে কাঁচামাল ও মুদির দোকান ছাড়া উপজেলার প্রত্যন্ত জনপদের দোকান-পাটগুলোও বন্ধ রয়েছে। এই অবস্থায় বন্ধ হয়ে গেছে দিনমজুর, রিক্সাচালক, ইজিবাইক টমটম চালকসহ হতদরিদ্র মানুষগুলোর রুটি-রুজির ব্যবস্থা।

মুলত করোনা ভাইরাসের এই পরিস্থিতিতে কর্মহীন হয়ে বাড়িতে বন্দি হয়ে পড়া মানুষ যাতে খাবার নিয়ে কোন সংকটে না পড়েন সেজন্য এখন থেকে প্রতিদিন ৩০০ পরিবারের কাছে নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী হিসেবে তিন কেজি চাল, দুই কেজি আটা ও এক কেজি করে মসুর ডাল বিতরণের উদ্যেগ নিয়েছেন উপজেলা চেয়ারম্যান ফজলুল করিম সাঈদী।

চকরিয়া পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডে কর্মহীন ১২শত পরিবারের খাদ্য সামগ্রী দিলেন কাউন্সিলর জিয়াবুল
——————————————————-
মহামারী করোনার কারণে কর্মহীন চকরিয়া পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডের ১২শত পরিবার এবং চকরিয়া উপজেলায় কর্মরত ২০জন পত্রিকা হকারকে খাদ্য সহায়তা দিয়েছেন পৌরসভার ৬নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর জিয়াবুল হক। গত চারদিনে কাউন্সিলর আলহাজ জিয়াবুল হক পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডে তাঁর লোকজনের মাধ্যমে কর্মহীন পরিবারের ঘরে ঘরে এসব খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিয়েছেন। সর্বশেষ বুধবার বিকালে তিনি উপজেলার ২০ জন পত্রিকা হকারের হাতে খাদ্য সহায়তা তুলে দিয়েছেন।

মানব সেবায় আত্ননিয়োজিত হয়ে দুর্যোগ মুর্হুতে প্রাণঘাতি নভেল করোনাভাইরাস সংক্রমণে অসহায় ও কর্মহীন মানুষের মাঝে ব্যক্তিগত তহবিলের উদ্যোগে ইতোমধ্যে ১২শত পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন চকরিয়া পৌরসভার জনপ্রিয় কাউন্সিলর আলহাজ্ব জিয়াবুল হক।

গত চারদিনে তিনি ১,২ ও ৩ নাম্বার ওয়ার্ডে ১২শত পরিবারকে ব্যাক্তিগত তহবিল থেকে খাদ্য সামগ্রী বাড়িতে পৌঁছে দেয়ার মধ্য দিয়ে বিতরণ কার্যক্রম শুরু করেন। ধাপে ধাপে সমগ্র পৌরসভার নিন্ম আয়ের পরিবার গুলোতে স্বল্প পরিসরে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দেয়া হবে বলে জানান কাউন্সিলর আলহাজ্ব জিয়াবুল হক।

চকরিয়া পৌরসভার কাউন্সিলর আলহাজ জিয়াবুল হক পৌরবাসির উদ্দেশ্যে বলেন, আমি আমার সাধ্যমতো যা দিচ্ছি তা হয়তো আপনাদের জন্য খুব সামান্য। কিন্তু ভালবাসার কমতি নেই প্রিয় পৌরবাসির জন্য। সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন ভবিষ্যতে যেন আমি আরো বড় পরিসরে এগিয়ে আসতে পারি আপনাদের সুখে-দুঃখে।

কাউন্সিলর জিয়াবুল হক সবাইকে তাছাড়া হোম কোয়ারেন্টাইন মেনে চলে প্রশাসনকে সহযোগিতা করার অনুরোধ জানান। সেইসাথে করোনা সংক্রমণে অসহায় ও কর্মহীন মানুষের পাশে বিত্তবানদের পাশে এগিয়ে আসার আহবান জানান।

এদিকে চকরিয়া উপজেলার কর্মরত কর্মহীন ২০ জন সংবাদপত্র হকারের খাদ্যসংকট দূর করতে প্রথমবারের মতো এগিয়ে এসেছেন কাউন্সিলর জিয়াবুল হক। তিনি বলেন, ‘প্রতিদিন তাদের মাধ্যমে আমরা খবরের কাগজ হাতে পাই। এই দুর্দিনে তাদের পাশে থাকাটাও বেশ জরুরী মনে করে তাৎক্ষণিকভাবে ২০ হকারের পরিবারের জন্য খাদ্যসামগ্রীর ব্যবস্থা করি।

লন্ডন প্রবাসি জামাল চৌধুরীর উদ্যোগে চকরিয়া পৌরসভার ১০০পরিবারকে খাদ্য সামগ্রী বিতরন
—————————————————
করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের প্রভাবে ঘরবন্দি চকরিয়া পৌরসভার ১নম্বর ওয়ার্ডের একশত কর্মহীন পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন লন্ডন প্রবাসি জামাল উদ্দিন চৌধুরী। প্রসঙ্গত, ব্যবসায়ী ও সমাজ সেবক জামাল চৌধুরী চকরিয়া পৌরসভার এক নম্বর ওয়ার্ডের কাজিরপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। তিনি সামসুল আলম সওদাগরের বড়ছেলে। তিনি দীর্ঘদিন ধরে স্বপরিবারে লন্ডনে বসবাস করছেন। সেখানে স্থায়ী নাগরিকত্বও পেয়েছেন তিনি।

বুধবার ১ এপ্রিল চকরিয়া পৌরসভার কাজিরপাড়া স্টেশনে জামাল চৌধুরীর ব্যক্তিগত অনুদানে কমহীন এসব পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন ১নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি সাবেক মেম্বার জাহাঙ্গীর আলম দুদু, কাজির পাড়া মসজিদ পরিচালনা কমিটির আব্দুর রহিম মিকার, সৌদি প্রবাসি জিয়াবুল, কবির, চকরিয়া পিসফুল ইউনাইটেড ক্লাবের সভাপতি মোঃ জাহেদুল ইসলাম প্রমুখ।

59 ভিউ

Posted ১০:২৬ অপরাহ্ণ | বুধবার, ০১ এপ্রিল ২০২০

coxbangla.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

Archive Calendar

Editor & Publisher

Chanchal Dash Gupta

Member : coxsbazar press club & coxsbazar journalist union (cbuj)
cell: 01558-310550 or 01736-202922
mail: chanchalcox@gmail.com
Office : coxsbazar press club building(1st floor),shaheed sharanee road,cox’sbazar municipalty
coxsbazar-4700
Bangladesh
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

ABOUT US :

coxbangla.com is a dedicated 24x7 news website which is published 2010 in coxbazar city. coxbangla is the news plus right and true information. Be informed be truthful are the only right way. Because you have the right. So coxbangla always offiers the latest news coxbazar, national and international news on current offers, politics, economic, entertainment, sports, health, science, defence & technology, space, history, lifestyle, tourism, food etc in Bengali.

design and development by : webnewsdesign.com