চিন সীমান্তের গভীর জঙ্গলে খোঁজ মিলল ভারতীয় যুদ্ধবিমানের ধবংসাবশেষ

sukhoi.jpg

কক্সবাংলা ডটকম(২৬ মে) :: অবশেষে খোঁজ মিললে মাঝ আকাশে হারিয়ে যাওয়া ভারতীয় সুখোই 30MKI ফাইটার যুদ্ধবিমানের। গত ২৩ মে চিনের সীমান্তবর্তী এলাকা থেকে নিখোঁজ হয়ে যায় ওই সুখোই ফাইটার জেট। তবে এই বিমানে থাকা দুই পাইলটের সম্পর্কে কোনও তথ্য পাওয়া যায়নি।

চিন সীমান্তের কাছ থেকেওই বিমানটিকে উদ্ধার করা হয়েছে বলে বায়ুসেনা সূত্রে খবর। অসমের তেজপুরের এয়ারবেস থেকে উড়েছিল বিমানটি। এরপর চিন সীমান্তের জাছে সেটি হারিয়ে যায়। বিমানে ছিলেন একজন স্কোয়াড্রন লিডার ও একজন ফ্লাইট লেফট্যানেন্ট। উদ্ধারকাজ চালানোর সময় একটি ঘন জঙ্গলে পাওয়া যায় ওই বিমান।

সকাল সাড়ে ১০ টা নাগাদ উড়ে যায় বিমানটি। রেডিও কানেকশন, রাডার – সব সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। ওই এয়ারক্রাফটকে খুঁজতে বড়সড় সার্চ অপারেশন শুরু করে বায়ুসেনা। আকাশে পাঠানো হয় বিশেষ ফ্লাইং টিম। রুটিন ট্রেনিং মিশনের অংশ হিসেবেই উড়ছিল বিমানটি। সকাল ১১ টায় শেষবার খোঁজ পাওয়া যায় ওই এয়ারক্রাফটের। তেজপুর থেকে ৬০ কিলোমিটার দূরে গিয়ে নিখোঁজ হয়ে যায় সুখোই বিমানটি।

এর আগে গত মার্চ মাসে রাজস্থানের বারমেরে ভেঙে পড়ে একটি সুখোই 30MKI ফাইটার জেট। যদিও তাতে হতাহতের কোনও ঘটনা ঘটেনি।

সুখোই হল একটি মাল্টি রোল ফাইটার জেট, যা যে কোনও আবহাওয়াতেই কাজ করে। গ্রাউন্ড অ্যাটাক থেকে এয়ার কমব্যাট- সবেতেই সমানভাবে কার্যকরী এই বিমান। এটি একটি রাশিয়ান যুদ্ধবিমান।

Share this post

PinIt
scroll to top
bahis siteleri