izmir escort telefonlari
porno izle sex hikaye
çorum sürücü kursu malatya reklam

মহাকাশ থেকে সামরিক নজরদারিতে শক্তিশালী রকেট লঞ্চ করছে ভারত

isro-1.jpg

কক্সবাংলা ডটকম(২২ জুন) :: ইতিহাসের দোরগোড়ায় দাঁড়িয়ে রয়েছে ভারত৷ ফের ইসরোর সাফল্য৷ আগামীকাল এক শক্তিশালী রকেট লঞ্চ করতে চলেছে ভারত৷ ‘কার্টোসাট’ স্যাটেলাইট সিরিজের একটি রকেট লঞ্চ করতে চলেছে ভারত৷ ‘কার্টোসাট’ স্যাটেলাইট সিরিজের এই রকেটটির নাম ‘কার্টোসাট ২’৷

এই কার্টোসাট স্যাটেলাইটগুলোকে ‘eye in the sky’ বলেও চিহ্নিত করা হয়৷ গত বছর ভারতের সীমান্তে সার্জিকাল স্ট্রাইকের ছবি মহাকাশ থেকে পাঠাতে পারবে৷ শত্রুপক্ষের অবস্থান সম্পর্কে জানান দেবে এই বিশেষ স্যাটেলাইটটি৷ এই স্যাটেলাইট মহাকাশের উপরে নজরদারি চালাতে সক্ষম৷

ইতিমধ্যেই ভারতের কাছে রয়েছে এমনই পাঁচটি স্যাটেলাইট৷ কিন্তু আবারও কেন একটি স্যাটেলাইটের প্রয়োজন কেন হল? এই প্রসঙ্গে ইসরো চেয়ারম্যান ড. এ এস কিরন কুমার বলেন, উচ্চমানের সিগন্যাল কিংবা ডেটা দেওয়ার জন্য যে সমস্ত স্যাটেলাইট রয়েছে মহাকাশে সেগুলি এখনও অবধি উচ্চমানের ডেটা মহাকাশ থেকে পাঠাতে সক্ষম নয়৷ অন্যান্য উৎস থেকে আমাদের ডেটা কিনতে হত৷

এটি একটি রিমোট সেন্সিং স্যাটেলাইট। এতে থাকবে একটি প্যান ক্যামেরা। যাতে পৃথিবীর সাদা-কালো ছবি উঠবে। জানা গিয়েছে, ১২৬ দিনের মধ্যে গোটা পৃথিবীর ছবি তুলে ফেলতে পারবে এই স্যাটেলাইট। ভারতের সামরিক নজরদারিতে একটি নতুন সংযোজন হতে চলেছে এই উপগ্রহ। একটু অত্যন্ত হাই রেজোলিউশনের ক্যামেরায় উঠবে ছবি।

এর আগের মিশনে ০.৮ এম রেজোলিউশনের ক্যামেরা ছিল। এবার কার্টোস্যাট-২ সিরিজের স্যাটেলাইটে থাকবে ০.৬৫ এম রেজোলিউশনের ক্যামেরা। এর আগে পাক অধিকৃত কাশ্মীরে ঢুকে সার্জিক্যাল স্ট্রাইক চালানোর সময় এই স্যাটেলাইট ইমেজর উপর ভরসা করেছিল ভারতীয় সেনা। এই কার্টোস্যাট ক্যামেরা তৈরি করেছে আমেদাবাদের ‘স্পেস অ্যাপ্লিকেশন সেন্টার’। শুধু ছবিই নয়, মহাকাশ থেকে অনেক স্পর্শকাতর জায়গার ভিডিও তুলে দিতে পারে এই স্যাটেলাইট।

এটি ছাড়াও PSLV আরও ছোট ছোট ৩০টি উপগ্রহ বহন করবে৷ এদের মধ্যে ২৯টি উপগ্রহই ১৫টি অন্যান্য দেশ থেকে আমেরিকা এবং চিলির৷ ৩০-তম স্যাটেলাইটটির ওজন প্রায় ১৫কেজি৷ যেটির নাম NIUSAT৷ এই স্যাটেলাইটটি তৈরি করেছে তামিলনাড়ুর নুরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক৷

Share this post

PinIt
scroll to top