বঙ্গোপসাগরে আমেরিকা ও জাপানের সঙ্গে চলছে ভারতের অন্যতম বৃহৎ যুদ্ধ মহড়া

ind-us-nevi-coxbangla.jpg

কক্সবাংলা ডটকম(১০ জুলাই) :: বঙ্গোপসাগরের জলে নেমেছে একাধিক সাবমেরিন ও যুদ্ধজাহাজ। রয়েছে ভারতের সবথেকে বড় এয়ারক্রাফট কেরিয়ার আইএনএস বিক্রমাদিত্য। ভারতের সঙ্গে জলে নেমেছে আমেরিকা ও জাপান। চলছে বিখ্যাত ‘মালাবার এক্সারসাইজ’। জেনে নিন সেই মহড়া সম্পর্কে কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য।

১. ১৯৯২ থেকে শুরু হয় মালাবার এক্সারসাইজ। আমেরিকা, ভারত ও জাপান এর স্থায়ী সদস্য। এছাড়াও ২০০৭ থেকে একাধিক মহড়ায় যোগ দিয়েছে এই তিন দেশ। গত বছর সবথেকে বড় মহড়া হয় এই তিন দেশের। যেখানে ছিল ১১টি ভেসেল ও ৮০০০ সেনা।

২. তিন দেশের একাধিক যুদ্ধযান এই মহড়ায় অংশ নিচ্ছে। তবে সবার নজরে রয়েছে ভারতের একমাত্র এয়ারক্রাফট কেরিয়াr আইএনএস বিক্রমাদিত্যের দিকে যার ওজন ৪৪,৫৭০ টন। এছাড়া রয়েছে জাপানের ২৭,০০০ টনের হেলিকপ্টার কেরিয়ার। আর আছে ১ লক্ষ টনের মার্কিন এয়ারক্রাফট কেরিয়ার ইউএসএস নিমিৎজ।

৩. এবারের মালাবার এক্সারসাইজের লক্ষ্য হল সাবমেরিন হান্টিং। তার জন্য ভারত ও আমেরিকা নামিয়েছে Poseidon-8 এয়ারক্রাফট।

৪. শুধু আইএনএস বিক্রমাদিত্যই নয়, ভারত বঙ্গোপসাগরে নিয়ে গিয়েছে দেশের কয়েকটি অত্যাধুনিক যুদ্ধজাহাজ ও সাবমেরিন। থাকবে দুটি ভারতে তৈরি শিবালিক ক্লাসের ফ্রিজেট, দুটি রাশিয়ায় তৈরি রণবীর ক্লাসের ডেস্ট্রয়ার। এছাড়াও থাকবে ভারতের নৌবাহিনীর অ্যান্টি সাবমেরিন ওয়ারফেয়ার করভেট, কোরা ক্লাস মাল্টি রোল করভেট, রাশিয়ায় তৈরি কিলো ক্লাস সাবমেরিন।

৫. বিতর্কিত দক্ষিণ চিন সাগরের কাছেই ভারত মহাসাগরে এই মহড়া হয়। দক্ষিণ চিন সাগরকে তাদের অধিকারভূক্ত বলে দাবি করে চিন। ফলে, বিশাল এই নৌমহড়া নিয়ে বেশ চিন্তাতেই থাকে চিন। তবে ভারত-চিন সীমান্তে উত্তেজনার মধ্যে এই মহড়ায় আরও চিন্তা বেড়েছে বেজিংয়ের।

Share this post

PinIt
scroll to top
error: কপি করা নিষেধ !!
bahis siteleri