buy Instagram followers
kayseri escort samsun escort afyon escort manisa escort mersin escort denizli escort kibris escort rize escort sinop escort usak escort trabzon escort

স্প্যানিশ সুপার কাপে নেইমারবিহীন রিয়ালে বিধ্বস্ত বার্সেলোনা

ronaldo_55227_1502681017.jpg

কক্সবাংলা ডটকম(১৪ আগস্ট) :: স্প্যানিশ সুপার কাপের প্রথম লেগে নেইমারবিহীন বার্সেলোনাকে ৩-১ গোলে হারিয়ে আরেকটি শিরোপা জয়ের পথে এগিয়ে গেল রিয়াল মাদ্রিদ। রোববার রাতে ম্যাচের দ্বিতীয়ার্ধ্বে কাম্প নউয়ে ফুটবল বিশ্ব দেখলো আরেকটি রোমাঞ্চকর ক্লাসিকো।

কারণ এ ম্যাচে গোল পেলেন বর্তমান ফুটবল দুনিয়ার একচ্ছত্র নায়ক লিওনেল মেসি। দুর্দান্ত গোলের পর লাল কার্ড দেখলেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। আত্মঘাতী গোল, হলুদ কার্ডের ছড়াছড়ি। রেফারির বিতর্কিত সিদ্ধান্ত। অথচ রোববার রাতে ম্যাচের প্রথমার্ধ দেখে মনেই হয়নি এতটা রোমাঞ্চ অপেক্ষা করছে দ্বিতীয়ার্ধে। পিএসজিতে চলে যাওয়া নেইমারকে ছাড়া প্রথম প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচ খেলতে নামে বার্সেলোনা। রিয়ালের প্রথম একাদশে ছিলেন না রোনালদোও।

দশম মিনিটে গোলের প্রথম সুযোগ লুইস সুয়ারেস নষ্ট করেন রিয়াল গোলরক্ষক কেইলর নাভাস বরাবর মেরে। ২৫তম মিনিটে মেসির ফ্রি-কিক ক্রসবারের একটু ওপর দিয়ে যায়। বলার মতো তেমন সুযোগ তৈরি করতে পারেনি রিয়াল।

ম্যাচের প্রথমার্ধেই হলুদ কার্ড পান কাসেমিরো, গ্যারেথ বেল, দানি কারভাহাল, মেসি ও জেরার্দ পিকে।তবে দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকেই জমে উঠে ম্যাচ। আর পঞ্চম মিনিটেই পিকের ভুলে এগিয়ে যায় রিয়াল। বাঁ দিক থেকে মার্সেলোর ক্রস তেমন কোনো চাপ ছাড়াই বিপদমুক্ত করতে গিয়ে নিজের জালে জড়িয়ে দেন স্প্যানিশ এই ডিফেন্ডার।

কিন্তু একটু পরই বার্সার সুযোগ আসে সমতা ফেরার।  ডান দিকথেকে জর্দি আলবার নিচু ক্রসে পা লাগাতে পারেননি মেসি। বল পেয়ে বাঁ থেকে নেইমারের স্থলে সুযোগ পাওয়া জেরার্দ দেউলোফেউ আরেকটি ক্রস বাড়ান। এবারও বলে সংযোগ ঘটাতে পারেননি আর্জেন্টিনার ফরোয়ার্ড।

৭১তম মিনিটে খুব কাছ থেকে মার্সেলোর শট ঠেকিয়ে বিপদ বাড়াতে দেননি গোলরক্ষক মার্ক-আন্ড্রে টের স্টেগেন।

তবে বেশ কয়েকবার সুযোগ নষ্ট করা মেসি অবশেষে ৭৭তম মিনিটে সমতা ফেরান পেনাল্টি কিকে।

এবার চমকের পালা। ম্যাচের ৮০তম মিনিটে পাল্টা আক্রমণে ইসকোর বাড়ানো বল ধরে পায়ের কাজে পিকেকে পরাস্ত করে ডি-বক্সে ঢুকেই জোরালো শটে চুপ করিয়ে দেন কাম্প নউকে। উপরের ডান কোনা দিয়ে জালে ঢোকা বলটি ঠেকানোর কোনো উপায় জানা ছিল না টের স্টেগেনের।

গোলের পর জামা খুলে গর্জন করে সুগঠিত শরীর দেখান পর্তুগিজ অধিনায়ক। দেখেন হলুদ কার্ড। দুই মিনিট পর ডি-বক্সে ডাইভের অভিযোগে রোনালদো দেখেন দ্বিতীয় হলুদ কার্ড। আর লাল কার্ড দেখে মেজাজ হারিয়ে হাত দিয়ে রেফারির পিঠে ধাক্কা দেন পর্তুগীজ তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। এজন্য শাস্তির মুখোমুখি হতে পারেন চারবারের বর্ষসেরা এ ফরোয়ার্ড।

কিন্তু প্রতিপক্ষ দলে একজন কম থাকার পরও ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি বার্সা । উল্টো ম্যাচের শেষ দিকে পাল্টা আক্রমণে জয় নিশ্চিত করে ফেলে জিদানের দল। লুকাস ভাসকেসের বাড়ানো বলে মার্কো আসেনসিওর বাঁ পায়ের দুর্দান্ত শট জালে ঢোকে পোস্টের উপরের বাঁ কোনা দিয়ে। স্প্যানিশ এই মিডফিল্ডারকে শট নিতে বাধা দিতে পারেননি পিকে।

২১ বছর বয়সী আসেনসিও লা লিগা, কোপা দেল রে, চ্যাম্পিয়ন্স লিগ, উয়েফা সুপার কাপের পর এবার স্প্যানিশ সুপার কাপেও রিয়ালের হয়ে অভিষেকে গোল পেলেন।

চির প্রতিদ্বন্দ্বীর মাঠে দুর্দান্ত এই জয়ে উয়েফা সুপার কাপ জিতে মৌসুম শুরু করা রিয়াল স্প্যানিশ ফুটবলের মৌসুম শুরুর ট্রফিও ঘরে তোলার লক্ষ্যেও অনেক এগিয়ে গেল।

Share this post

PinIt
izmir escort bursa escort Escort Bayan
scroll to top
en English Version bn Bangla Version
error: কপি করা নিষেধ !!
bahis siteleri