Home কক্সবাজার রোহিঙ্গাদের মধ্যে ত্রাণ কাজ চালাতে পারবে না মুসলিম এইড, ইসলামিক রিলিফ এবং...

রোহিঙ্গাদের মধ্যে ত্রাণ কাজ চালাতে পারবে না মুসলিম এইড, ইসলামিক রিলিফ এবং ফজলুল্লাহ ফাউন্ডেশন

237
SHARE

কক্সবাংলা রিপোর্ট(১১ অক্টোবর) :: রোহিঙ্গাদের মধ্যে ত্রাণ কাজ চালাতে তিনটি বেসরকারি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার (এনজিও) ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে সরকার। এগুলো হলো মুসলিম এইড বাংলাদেশ, ইসলামিক রিলিফ এবং আল্লামা ফজলুল্লাহ ফাউন্ডেশন।

বুধবার সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠকে এ তথ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে বলে কমিটি ও সংসদ সচিবালয়ের কর্মকর্তাদের সূত্রে জানা গেছে।

এ বিষয়ে কমিটির সদস্য মাহজাবিন খালেদ বলেন, তিনটি এনজিওকে রোহিঙ্গাদের মধ্যে ত্রাণ তৎপরতা চালাতে নিষেধ করা হয়েছে। সেখানে কাজ করতে হলে সরকারের এনজিও বিষয়ক ব্যুরো থেকে অনুমতি নিতে হয়, কিন্তু ওই এনজিওগুলো কোনও অনুমোদন না নিয়েই কাজ করছিল। অনেকে পারমিশন না নিয়ে সরাসরি চলে যাচ্ছে। সেগুলোও বন্ধ করতে বলা হয়েছে। তবে কোন তিনটি এনজিওকে কাজ করতে নিষেধ করা হয়েছে মাহজাবিন খালেদ তা জানাননি।

এদিকে, তিনটি দেশি-বিদেশি এনজিও, যারা কক্সবাজারে কাজ করার আগ্রহ প্রকাশ করেছিল তাদের সেখানে কাজ করার অনুমতি দেওয়া হয়নি। এগুলো হলো, মুসলিম এইড বাংলাদেশ, ইসলামিক রিলিফ এবং আল্লামা ফজলুল্লাহ ফাউন্ডেশন।

এ বিষযে জানতে চাইলে সরকারের একজন কর্মকর্তা বলেন, মুসলিম এইড ২০১৪ সালের আগে রোহিঙ্গাদের সহায়তা দেওয়ার জন্য টেকনাফের লেদা ক্যাম্পে কাজ করতো কিন্তু পরে তাদের কিছু কার্যক্রম সরকারের নজরে আসার পরে তাদের সেখানে কাজ করার বিষয়ে নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়।

মুসলিম এইড লন্ডনভিত্তিক একটি সংস্থা। দীর্ঘ কয়েকবছর এটির ট্রাস্টি ছিল মানবতাবিরোধী অপরাধে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আল বদর নেতা চৌধুরী মঈনুদ্দীন। ২০১৩ সালের ডিসেম্বরে মুসলিম এইড রংপুর ব্রাঞ্চের প্রধানকে নাশকতামূলক কাজে অর্থায়নের জন্য আটক করা হয়। তারা ইউরোপীয় ইউনিয়নসহ বিভিন্ন জায়গা থেকে আর্থিক সহায়তা পেত।

ইসলামিক রিলিফ এবং আল্লামা ফজলুল্লাহ ফাউন্ডেশন বিষয়ে আপত্তি কেন জানতে চাইলে তিনি বলেন, তারাও মুসলিম এইডঘরানার এনজিও। এদের বিষয়ে সরকার সতর্ক আছে।

অপরদিকে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের সহায়তায কক্সবাজারে কাজ করার জন্য গত এক মাসে অন্তত ২৫টি এনজিওকে কাজ করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

 

SHARE