চকরিয়ায় ইউনিয়ন পরিষদের উন্নয়ন কাজে বৈষম্য

aniom-durniti.jpg

এম.জিয়াবুল হক,চকরিয়া(২০ নভেম্বর) :: চকরিয়া উপজেলার ঢেমুশিয়া ইউনিয়নে উন্নয়নে কাজে পক্ষপ্রাতিত্বমুলক বৈষম্য করার অভিযোগ উঠেছে ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আলম জিকুর বিরুদ্ধে।

এ ধরণের অভিযোগ তুলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার দপ্তরে লিখিত অভিযোগ করেছেন একই পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান মহিলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আরজ খাতুন। গত ১৯ নভেম্বর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে তিনি লিখিত অভিযোগটিতে দায়ের করেন।

অভিযোগ সুত্রে জানা গেছে, ঢেমুশিয়া ইউনিয়নের ৪ ও ৬ নম্বর ওয়ার্ডে কাজ করা মাটির রাস্তাগুলো ইতোমধ্যে বন্যার কারনে ভেঙ্গে জনগনের চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে। ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আলম জিকু উন্নয়ন কাজের বিষয় নিয়ে ইতোপুর্বে ইউনিয়ন পরিষদে সকল সদস্যদের নিয়ে একটি জরুরি সভার আয়োজন করে।

সভায় চেয়ারম্যান কৌশল করে সদস্যদের কাছ থেকে উপ¯ি’তির সাক্ষর নেন। পরে ওই স্বাক্ষরের অজুহাতে ইউনিয়নের ২ ও ৫ নম্বর ওয়ার্ডের পুর্বের একটি রাস্তার ব্রিক সলিন কাজ প্রকল্প প্রস্তাব কর্মসূচীতে প্রকাশ করেন। সভার উপস্থিতি স্বাক্ষর নিয়ে অন্য ওয়ার্ডে কাজ করার কর্মসুচী প্রকাশ করার ঘটনায় ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অভিযোগটি করেন প্যানেল চেয়ারম্যান আরজ খাতুন।

প্যানেল চেয়ারম্যান আরজ খাতুন বলেন, ইতোপুর্বে কাজ করা ইউনিয়নের ৪ ও ৬ নম্বর ওয়ার্ডের মাটির রাস্তাগুলো মাতামুহুরী নদীর তীরে অবস্থিত হওয়ায় বন্যার কারনে পানিতে তলিয়ে গিয়ে জনগনের চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। এলাকার লোকজনের পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের চলাচলের জন্য জরুরি ভাবে ক্ষতিগ্রস্থ রাস্তাটি না করার কারনে ইতোমধ্যে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে এলাকাবাসি বিক্ষোভ করেছে।

তিনি দাবি করেন, উন্নয়ন কাজের পাশাপাশি ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আলম জিকু পরিষদের সকল ধরণের সেবামুলক কাজে বৈষম্য করছেন। এতে জনগন চরমভাবে ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন।

Share this post

PinIt
scroll to top
error: কপি করা নিষেধ !!
bahis siteleri