izmir escort telefonlari
porno izle sex hikaye
çorum sürücü kursu malatya reklam

টেকনাফ ও সেন্টমার্টিনে পৃথক অভিযানে ৮ লক্ষাধিক ইয়াবা উদ্ধার : আটক-৪

yaba-teknaf-1.5.jpg

হুমায়ুন রশীদ,টেকনাফ(১ মে) :: কক্সবাজারের টেকনাফ ও সেন্টমার্টিনে পৃথক অভিযান চালিয়ে ৮ লাখ ১০ হাজার ইয়াবা জব্দ করেছে পুলিশ ও কোস্টগার্ড সদস্যরা। এ সময় ডাম্পার গাড়ি, ট্রলারসহ চারজনকে আটক করা হয়। সোমবার সন্ধ্যা ও গভীর রাতে দুটি অভিযানে এই বিপুল পরিমাণ ইয়াবা জব্দ করা হয়।উদ্ধারকৃত ইয়াবার বাজার মূল্য ২৪ কোটি টাকা।

টেকনাফ মডেল থানার অফিসা ইনচার্জ (ওসি) রনজিত কুমার বড়ুয়া জানান, ১ মে মঙ্গলবার ভোরে টেকনাফ সদর ইউনিয়নের রাজার ছড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৪ লাখ ৫০ হাজার পিস ইয়াবা ও একটি ড্রাম ট্রাক উদ্ধার করা হয়।

ওসি আরও জানান,একইদিন ভোর রাতে থানা পুলিশের এস আই মহির উদ্দিন খাঁনের নেতৃত্বে একদল পুলিশ সাবরাং বেঙ্গাপাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে ২ হাজার ৬৮০ পিস ইয়াবাসহ টেকনাফ সাবরাং বেঙ্গাপাড়া এলাকার একলার মিয়ার ছেলে মাহমদুল হক (২৪) কে আটক করা হয়।

ইয়াবাসহ আটক যুবকের বিরুদ্ধে মামলা রজু করে আদালতে প্রেরণ করা হবে বলে জানা গেছে।

অপরদিকে সেন্টমার্টিনের কোস্টগার্ড স্টেশন কমান্ডার লে. ফয়সাল বীন রশীদ জানান,সোমবার সন্ধ্যায় টেকনাফ উপকূলের সেন্টমার্টিনের জেটিঘাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৩ লাখ ৬০ হাজার পিস ইয়াবাসহ চারজনকে আটক করেছে কোস্টগার্ড।

আটককৃৃতরা হলেন নয়াপাড়া এলাকার জমির আহমেদের ছেলে লুৎফর রহমান (৩৪), একই এলাকার শাহ আলমের ছেলে রফিক আহমেদ(৩২) ও আব্দুস সালামের ছেলে কাশেম (৩৭) এবং একই এলাকার আ. মজিদের ছেলে সুলতান মাঝি।

কোস্টাগার্ড সূত্র জানায়, সোমবার সন্ধ্যায় ফয়সাল বীন রশীদের নেতৃত্বে একটি টহল দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জেটিঘাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৩ লাখ ৬০ হাজার পিস ইয়াবা এবং ১টি ট্রলারসহ ৩ জনকে আটক করে। পরে আটককৃতদের দেয়া তথ্যে অভিযানের সময় পালিয়ে যাওয়া সুলতান মাঝিকেও আটক করে।

কোস্টগার্ড স্টেশন কমান্ডার লে. ফয়সাল বীন রশীদ আরও বলেন, জব্দ ইয়াবাসহ আটককৃতদের আইনগত প্রক্রিয়া গ্রহণ শেষে টেকনাফ থানায় হস্তান্তর করা হবে।

Share this post

PinIt
scroll to top