একলাখ রোহিঙ্গাকে দুই মাসের মধ্যে ভাসানচরে সরিয়ে নেওয়া হবে : কক্সবাজারে ত্রান ও দুর্যোগ সচিব

rh-crisir-cox-s-kamal.jpg

শহিদুল ইসলাম,উখিয়া(১৯ মে) :: কক্সবাজার থেকে আগামী দুই মাসের মধ্যে এক লাখ রোহিঙ্গাকে নোয়াখালীর ভাসানচরে সরিয়ে নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন ত্রাণ ও দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ের সচিব এস এম শাহ কামাল।

শনিবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার বালুখালী ২/২ রোহিঙ্গা ক্যাম্প এলাকায় সেনাবাহিনীর তত্ত্বাবধানে আয়োজিত দূর্যোগ মোকাবিলার প্রস্তুতি মহড়ার উদ্বোধনকালে ত্রাণ ও দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা সচিব এ কথা বলেন।

ত্রাণ ও দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা সচিব এস এম শাহ কামাল বলেছে আসন্ন বর্ষা মৌসুমে বন্যা, ঘূর্ণিঝড়, পাহাড় ধ্বস ও পাহাড়ি ঢলের আশঙ্কায় ঝুঁকি মোকাবেলায় ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। এ লক্ষ্যে স্থানীয় রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠিসহ সশস্ত্র ও সরকারি বিভিন্ন বাহিনী এবং বিভিন্ন সংস্থা কাজ করছে।

এসময় শাহ কামাল আরও বলেন, কক্সবাজারের বিভিন্ন রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় আশ্রয় নেয়া এক লাখ নাগরিকের জন্য আবাসন সুবিধাসহ বিভিন্ন অবকাঠামো তৈরির কাজ চলছে।আর আগামী আগস্টের মধ্যে অবকাঠামোর কাজ শেষ করে সেপ্টেম্বরের মধ্যেই তাদেরকে ভাসানচরে স্থানান্তর করা হবে। বর্তমানে নিবন্ধিত ১১ লাখ ১৭ হাজার রোহিঙ্গা নাগরিকের মধ্যে ১ লাখ ৩২ হাজারের বেশি মানুষ ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় অবস্থান করছেন।

তিনি আরও বলেন, বিশাল পাহাড়ি এলাকায় রোহিঙ্গারা আশ্রয় নেওয়ায় বন ও পরিবেশের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। সরকার সেই ক্ষতি পুষিয়ে নিতে নানা চিন্তা ভাবনা করছে। রোহিঙ্গাদের নোয়াখালীর ভাসানচরে স্থানাস্তারের পর খালি জায়গায় নতুন করে বনায়ন করে আগের প্রাকৃতিক পরিবেশ ফিরিয়ে আনা হবে।

Share this post

PinIt
scroll to top
bahis siteleri