কক্সবাজারে রোহিঙ্গাদের যাচাই-বাছাই প্রক্রিয়া শুরু করেছে ইউএনএইচসিআর

rh-bd-unhcr-coxbangla.jpg

কক্সবাংলা রিপোর্ট(৭ জুলাই) :: কক্সবাজারের উখিয়া ও টেকনাফে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের পরিচয় যাচাইকরণ প্রক্রিয়া চলমান সংকটের সমাধানে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে আশা করছে জাতিসংঘ।

শুক্রবার জাতিসংঘের সদরদপ্তরে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে জাতিসংঘ মহাসচিবের উপ মুখপাত্র ফারহান হক বলেন, এই প্রক্রিয়া রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান খুঁজে বের করতে সহায়ক হতে পারে।

বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে রোহিঙ্গাদের যাচাই-বাছাই প্রক্রিয়া শুরু করেছে জাতিসংঘের শরণার্থী সংস্থা- ইউএনএইচসিআর।

এ বিষয়ে ফারহান হক বলেন, ছয় মাসের এই প্রক্রিয়া নিরাপত্তা, পরিচয় ব্যবস্থাপনা, বিভিন্ন তথ্য সরবরাহ, সাহায্যের ব্যবস্থা এবং জনসংখ্যা পরিসংখ্যানের উদ্দেশে একটি সমন্বিত তথ্যভাণ্ডার (ডাটাবেস) তৈরিতে সাহায্য করবে।

তিনি বলেন, চোখের স্ক্যান, আঙুলের ছাপ ও ছবিসহ বায়োমেট্রিক তথ্য ১২ বছরের ঊর্ধ্বে সকল শরণার্থীকে স্বতন্ত্র পরিচয় নিশ্চিত করতে ব্যবহার করা হবে। প্রক্রিয়া শেষে শরণার্থীদের নতুন পরিচয়পত্র প্রদান করা হবে।

এর আগে ঢাকায় অবস্থিত ইউএনএইচসিআরের কার্যালয় থেকে জানানো হয়, তারা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের পরিচয় ব্যবস্থাপনা এবং তথ্যাদি সরবরাহের জন্য বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে একত্রে যাচাইকরণের কাজ করছে।

Share this post

PinIt
scroll to top
bahis siteleri