টেকনাফ সীমান্তে নাফ নদী পেরিয়ে অনুপ্রবেশের চেষ্টা : রোহিঙ্গাবাহী নৌকা মিয়ানমারে ফেরত

naf-cst-grd.jpg

হুমায়ুন রশীদ,টেকনাফ (১৩ আগষ্ট) :: মিয়ানমার থেকে নাফ নদী পেরিয়ে অনুপ্রবেশের চেষ্টাকালে রোহিঙ্গাবাহী একটি নৌকা ফেরত পাঠিয়েছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর নেতৃত্বে প্রতিনিধি দল মিয়ানমার সফর শেষে ফেরত আসার পরপরই সীমান্ত দিয়ে অনুপ্রবেশের চেষ্টা করছে রোহিঙ্গারা।

আর মিয়ানমার থেকে হঠাৎ করেই নাফ নদী পেরিয়ে অনুপ্রবেশের চেষ্টাকালে রোহিঙ্গা বোঝাই একটি নৌকা ফেরত পাঠায় বিজিবি।

সোমবার (১৩ আগষ্ট) সন্ধ্যার দিকে টেকনাফ উপজেলার সাবরাং ইউনিয়নের শাহপরীর দ্বীপের জালিয়াপাড়া সীমান্ত পয়েন্ট দিয়ে ১২ জন রোহিঙ্গাবাহী একটি নৌকা অনুপ্রবেশের চেষ্টা করে। এ সময় বিজিবির টহলদল ওই নৌকাটি সীমান্ত দিয়ে ফেরত পাঠায়। এ নৌকায় তিনজন নারী, দুজন পুরুষ ও সাতজন শিশু-কিশোর ছিল।

টেকনাফ-২ বিজিবির উপ-অধিনায়ক মেজর শরীফুল ইসলাম জোমাদ্দার বলেন, ওই নৌকায় রোহিঙ্গা শিশুর সংখ্যা বেশি ছিল। তবে নতুন করে রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশের ঘটনা যাতে না ঘটে সে জন্য সীমান্তে বিজিবির টহল ও নজরদারি বাড়ানো হয়েছে। রোহিঙ্গাবাহী নৌকাটি একই সীমান্ত দিয়ে মিয়ানমারে ফেরত পাঠানো হয়।

গত বছরের ২৫ আগস্ট থেকে বাংলাদেশের সীমান্ত দিয়ে রোহিঙ্গার ঢল নামেন। এই সময় রাখাইন রাজ্যে সহিংসতায় সেদেশের সেনাবাহিনী ধরপাকড়, নির্যাতন, বাড়িঘরে আগুন ও গণধর্ষণের ভয়ে রোহিঙ্গারা পালিয়ে আসতে শুরু করে। বতর্মানে উখিয়া-টেকনাফে ১১ লাখের বেশি রোহিঙ্গা বসবাস করছেন।

এসব রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে ফেরত পাঠাতে দেশী-বিদেশী সংস্থা জোর তৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে। এর মাঝেও সীমান্ত দিয়ে রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশর চেষ্টায় ভাবিয়ে তুলেছে সচেতন মহলকে।

Share this post

PinIt
scroll to top
bahis siteleri