মহেশখালীতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ শীর্ষ সন্ত্রাসী নিহত : অস্ত্র উদ্ধার

mk-5.jpg

এম রমজান আলী,মহেশখালি(৫ ফেব্রুয়ারী) :: কক্সবাজারের সন্ত্রাস কবলিত জনপদ মহেশখালীতে দু’সন্ত্রাসী বাহিনীর ‘বন্দুকযুদ্ধে’ সাহাব উদ্দিন (৩৪) নামে এক শীর্ষ সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে।

মঙ্গলবার ভোরে উপজেলার ছোট মহেশখালী ইউনিয়নের কালমাদিয়া এলাকার গহীন অরণ্যে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত সাহাব উদ্দিন(৩৪) কালারমারছড়া ইউনিয়নের নোনাছড়ি গ্রামের আব্দুর রহিম প্রকাশ লেইট্যার পুত্র বলে জানাগেছে। তার বিরোদ্ধে হত্যা সহ ১৬টি মামলার আসামী।

পুলিশ সূত্রে জানাযায়:-আজ ভোর অনুমান ৫ ঘটিকার সময় মহেশখালী থানাধীন ছোট মহেশখালীর কালমাদিয়া ঘোনার পাহাড়ী এলাকায় আধিপত্য বিস্তার ও ইয়াবা ব্যবসার টাকা ভাগাভাগি নিয়ে দুই সন্ত্রাসী গ্রুপের মধ্যে গোলাগুলি খবর পেয়ে কালারমারছড়ার পুলিশ ক্যাম্প ইনচার্জ এসআই শাহজাহান সঙ্গীয় ফোর্স সহ এবং মহেশখালী থানার মোবাইল ডিউটি ইনচার্জ এসআই এস আই পঙ্কজ দাস সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন।

এসময় সন্ত্রাসী গ্রুপ কে নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা চালায় মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ ও তদন্ত সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টায় ৬৯ রাউন্ড পাকা গুলি করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

পরবর্তীতে পুলিশ পাহাড়ে তল্লাশি ছালিয়ে একটি একনলা বন্দুক চারটি এলজি ১৩ রাউন্ড তাজা কার্তুজ ১০৯ পিস ইয়াবাসহ একজন কে ঘটনাস্থলে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পাওয়া যায়। পরে এটি সাহাব উদ্দিন নামে এক সন্ত্রাসীর মরদেহ বলে শনাক্ত হয়েছে।

পরবর্তীতে মহেশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করে। জানা যায় তার বিরুদ্ধে থানায় ১৬ টি মামলা রয়েছে।

মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) প্রভাষ চন্দ্র ধর বিষয়টি নিশ্চিত করে। ময়নাতদন্তের জন্য তার মরদেহ কক্সবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, মাদক ব্যবসায়ীদের স্থান মহেশখালীতে হবেনা। এলাকার লোকজনের সহযোগীতায় মহেশখালীকে সন্ত্রাস মুক্ত করা হবে।

Share this post

PinIt
scroll to top