কক্সবাজারের বালুখালী ক্যাম্প ছেড়ে পালানোর পথে ১২ জন রোহিঙ্গা আটক : পুনরায় ক্যাম্পে পুশব্যাক

Chakaria-Picture-20-03-2019.jpg

এম.জিয়াবুল হক,চকরিয়া(২০ মার্চ) :: উখিয়া বালুখালী ক্যাম্প থেকে চট্টগ্রামে পালিয়ে যাওয়ার পথে চকরিয়া থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে ১২জন মায়ানমার নাগরিককে আটক করেছে।

মঙ্গলবার রাতে চকরিয়া উপজেলার খুটাখালী ইউনিয়নের একটি বাড়ি থেকে পুলিশ তাদেরকে আটক করেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চকরিয়া থানার ওসি।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, চকরিয়া উপজেলার খুটাখালী ইউনিয়নের মেধাকচ্ছপিয়া এলাকার ওমর আলীর ছেলে আনোয়ার হোসেন বাড়িতে রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে পালিয়ে রোহিঙ্গা আশ্রয় নেয়।

এসময় ওমর আলীর ছেলে আনোয়ার হোসেন (৩৫) আটক করা হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে। বাড়ির মালিকের দাবী, আটককৃত রোহিঙ্গারা রাজমেস্ত্রী কাজ করতে আসছিলেন।

আটককৃতরা হলেন উখিয়া বালুখালী ক্যাম্পের এ ব্লকের আবদুর রহমানের ছেলে ছৈয়দ আমিন (৩০), আবদুল গণির ছেলে মো.হোসেন (২৫), তার ভাই মো.সাদেক (১৯), হারুন সালামের ছেলে রাহমত উল্লাহ (২৫), মোহাম্মদ মুছার ছেলে জোবায়ের (২৩), ফয়েজ আহমদের ছেলে আবদুর রব (২৫), নুর মোহাম্মদের ছেলে আলী আহমদ (২১), আবু ছৈয়দের ছেলে নুর সালাম (২০), ফয়জুর ইসলামের ছেলে সাদেক হোসেন (১৯), মোহাম্মদ ছৈয়দের ছেলে ইয়াদুল ইসলাম (১৯), আবদুল মালেকের ছেলে জোবায়ের (৩০) ও জামতলী ক্যাম্পে থাকা আবদুল গণির ছেলে নুর হোসেন (১৯)।

চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী বলেন, উখিয়া বালুখালী ক্যাম্প থেকে পালিয়ে এসে ১২জন মায়ানমার নাগরিক চকরিয়া উপজেলার খুটাখালী ইউনিয়নের ২নম্বর ওয়ার্ডের মেধাকচ্ছপিয়া এলাকার ওমর আলীর ছেলে আনোয়ার হোসেন বাড়িতে অবস্থান করছিলেন। তাঁরা সুযোগ বুঝে চট্টগ্রামে পালিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিল।

ওইসময় বিষয়টি জানতে পেরে মহাসড়কে ডিউটিরত চকরিয়া থানা থানার এস আই সুকান্ত চৌধুরীর নেতৃত্বে সঙ্গীয় পুলিশের একটিদল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে খুটাখালী ইউনিয়নের মেধাকচ্ছপিয়া এলাকার একটি বাড়ি থেকে তাদেরকে আটক করে।

ওসি বলেন, আটক সকলেল বাড়ি মায়ানমারের আকিয়াব ও বুচিডং এলাকায়। বুধবার বিকেলে আটককৃত এসব মায়ানমার নাগরিককে পুলিশ প্রটোকলে উখিয়া রোহিঙ্গা শরনার্থী পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জের কাছে পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে।

Share this post

PinIt
scroll to top
error: কপি করা নিষেধ !!
bahis siteleri