রামুতে ইউএনও’র হস্তক্ষেপে অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধ : ব্যবসায়ীর ১ মাসের কারাদন্ড

Ramu-Balumohal-Pic.jpg

খালেদ হোসেন টাপু,রামু(১৮ জুন) :: কক্সবাজারের রামু উপজেলাধীন রশিদ নগরে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করার দায়ে এক ব্যক্তিকে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

মঙ্গলবার (১৮ই জুন) রামু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) প্রণয় চাকমা এ সাজা দেন।

দন্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তি শামশুল আলম (৪০) উপজেলার রশিদ নগর ইউনিয়নের থলিয়াঘোনা ৬নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা। তার পিতার নাম গোলাম হোসেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শামসুল আলম উপজেলার রশিদ নগর ইউনিয়নের থলিয়াঘোনা থেকে ইজারা মহালের অন্তত প্রায় ৩/৪ কিলোমিটার দূরবর্তী জায়গা থেকে ড্রেজার মেশিন দিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে আসছিলেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত ঘটনাস্থলে অভিযান চালিয়ে শামশুলকে এ দন্ড প্রদান করেন।

রামু উপজেলা নবাগত নির্বাহী অফিসার প্রণয় চাকমা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বালু মহাল ও মাটি ব্যবস্থাপনা আইন-২০১০-এর ১৫ ধারায় দোষী সাব্যস্ত করে শামশুল আলমকে এ দন্ড দেওয়া হয়। অভিযানের সময় ড্রেজার মেশিনের পাইপসহ সকল সরঞ্জামাদি জব্দ করে বিনষ্ট করা হয়। তিনি অবৈধভাবে বালি উত্তোলনের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণসহ ভ্রাম্যমান আদালতের কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলে জানান।

উল্লেখ্য যে, রামু উপজেলায় প্রশাসন ও রাজনৈতিক নেতাদের ছত্রছায়ায় থেকে কিছু অসাধু বালু ব্যবসায়ী বাঁকখালীসহ বিভিন্ন ছরা খাল থেকে বালু উত্তোলনসহ নানা অবৈধ কর্মকান্ডের চালিয়ে যাচ্ছে বলে অভিযোগ রয়েছে। এদিকে নবাগত উপজেলা নির্বাহী অফিসার প্রণয় চাকমা’র হস্তক্ষেপে একের পর এক বালু উত্তোলন বন্ধ করায় এলাকাবাসীর মধ্যে স্বস্তি ফিরে এসেছে।

Share this post

PinIt
scroll to top
bahis siteleri