টেকনাফ রোহিঙ্গা ক্যাম্পে স্কুল পরিদর্শনে যুক্তরাষ্ট্রের এলিস ওয়েলস ও রাষ্ট্রদূত মিলার

Teknaf-Pic-A-1-07-11-19.jpg

হুমায়ূন রশিদ,টেকনাফ(৭ নভেম্বর) :: কক্সবাজারের টেকনাফে রোহিঙ্গা শিশুদের জন্য ইউনিসেফের সহায়তায় এবং কোডেক পরিচালিত স্কুল পরিদর্শন করেছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়া বিষয়ক ভারপ্রাপ্ত সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী এলিস ওয়েলস ও বাংলাদেশে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার।

এসময় কর্মকর্তাবৃন্দ ঘুরে-ফিরে স্কুল দেখেন এবং রোহিঙ্গা শিশু শিক্ষার্থীদের সাথে কৌশল বিনিময় করে সময় কাটান।

৭ নভেম্বর (বৃহস্পতিবার) সকাল ১১টায় এলিস এয়েলস ও রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার কক্সবাজারের টেকনাফ বাহারছড়া শাপলাপুর গ্রামে কোডেক এনজিওর পরিচালনাধীন সূর্যমূখী কামিনী নামক ২টি লার্নিং সেন্টার পরিদর্শন করেছেন।

এসময় তাদের বিশেষ নিরাপত্তায় ছিলেন শামলাপুর রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ইনচার্জ (সিআইসি) তুলক চক্রবর্তী।

কর্মকর্তাবৃন্দ এসব লার্নিং সেন্টারে অধ্যায়নরত রোহিঙ্গা শিশুদের কাছে জানতে চান তোমাদের কোন সাবজেক্ট বেশি ভাল লাগে! তখন রোহিঙ্গা শিশুরা কেউ ইংরেজী, কেউ গণিত, কেউ বা বার্মিজ ভাষার সাবজেক্ট বেশি ভাল লাগে বলে উত্তর দেয়।

আবার তোমরা বড় হয়ে ভবিষ্যতে কি হতে চাও এমন প্রশ্নের জবাবে রোহিঙ্গা শিশুরা কেউ ডাক্তার,কেউ শিক্ষক,কেউ সমাজ সেবক হতে চান জানান।

এ সময় রোহিঙ্গা শিশুদের স্বপ্নের কথা শুনে অতিথিরা উচ্ছাস প্রকাশ করেন এবং বেশ কিছুক্ষণ সময় রোহিঙ্গা শিশুদের সাথে আড্ডায় মেতে উঠেন।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন ইউনিসেফ ও কোডেক এনজিওর বিভিন্ন কর্মকর্তাগণ।

এরআগে বৃহস্পতিবার সকালে কক্সবাজার বিমানবন্দরে পৌঁছে শরণার্থী,ত্রাণ ও প্রত্যাবাস কমিশনার (আরআরআরসি) কার্যালয়ে মোঃ মাহবুব আলম তালুকদারের সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন।বিকেলেই ঢাকার উদ্দেশ্যে তার কক্সবাজার ত্যাগ করেন।

Share this post

PinIt
scroll to top
error: কপি করা নিষেধ !!
bahis siteleri