উখিয়ার রত্নাপালংয়ে ফোর মার্ডারের হত্যাকারীদের গ্রেপ্তারের দাবীতে কোটবাজারে প্রতিবাদ সমাবেশ

u15.jpg

মোসলেহ উদ্দিন,উখিয়া(১৫ নভেম্বর) :: কক্সবাজারের উখিয়ায় লৌমহর্ষক একই পরিবারের চারজনকে জবাই করে হত্যাকান্ডের দেড় মাস অতিবাহিত হলেও ঘাতক গ্রেপ্তার না হওয়ায় মানববন্ধন ও পথসভা করেছে সম্মিলিত উখিয়াবাসী ও ফোর মার্ডার বিচার বাস্তবায়ন কমিটি।

শুক্রবার উখিয়ার কোটবাজার স্টেশনে বিকেল ৩টায় ঘন্টাব্যাপী কক্সবাজার-টেকনাফ সড়কের উভয় পাশে মানববন্ধন ও পথসভায় বৌদ্ধ সম্প্রদায়সহ সকল সম্প্রদায়ের কয়েক হাজার মানুষ অংশ নেন। চাঞ্চল্যকর ফোর মার্ডারে জড়িত কোন ঘাতককে এই পর্যন্ত গ্রেপ্তার না হওয়ায় এ মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাষ্টের ট্রাষ্টি এডভোকেট দীপঙ্কর বড়ুয়া পিন্টু, উখিয়া উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান কামরুন্নেছা বেবী, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ উখিয়া উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক ও চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী, রত্নাপালং ইউপি চেয়ারম্যান খাইরুল আলম চৌধুরী, বাংলাদেশ বৌদ্ধ সমিতি জেলা সভাপতি রবিন্দ্র বিজয় বড়ুয়া, বাংলাদেশ বৌদ্ধ সমিতি যুব’র জেলা সভাপতি এড. অনিল কান্তি বড়ুয়া, উখিয়া সার্বজনীন বৌদ্ধ সমাজ উন্নয়ন ও বিহার সুরক্ষা কমিটির সভাপতি প্লাবন বড়ুয়া, প্রভাষক রনজিত বড়ুয়া, নুর মোহাম্মদ সিকদার, শিক্ষক মেধু কুমার বড়ুয়া, শিক্ষক রাহুল বড়ুয়া আদিত্য, অনিত্য বড়ুয়া, ইউপি সদস্য স্বপন শর্মা রনি, ইউপি সদস্য মোকতার আহমদ, উখিয়া উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম সম্পাদক আবুল হোছাইন আবু, উখিয়া উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মকবুল হোসাইন মিথুন, সঞ্জয় বড়ুয়া প্রমুখ।

প্রসংগত ২৫ সেপ্টেম্বর উখিয়ার রত্নাপালং ইউনিয়নের পূর্ব রত্নাপালং কুয়েত প্রবাসী রোকেন বড়ুয়ার বাড়ীতে এই হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটে। গভীর রাতে দুর্বৃত্তরা প্রবাসীর স্ত্রী মিলা বড়ুয়া (২৫), একমাত্র ছেলে রবিন বড়ুয়া (৫)তার মা সখি বালা বড়ুয়া (৬৫) ও ভাইজি সনি বড়ুয়া (৬) জবাই করে নির্মম ভাবে হত্যা করে। পরদিন ঘটনাটি জানাজানি হলে জেলা পুলিশ সুপারসহ সংশ্লিষ্টরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। পরে বিষয়টি অতি সংবেদনশীল হওয়ায় চট্টগ্রাম থেকে ফরেনসিক বিভাগের একটি টীম এসে লাশ উদ্ধার করেন। হত্যাকান্ডের ঘটনা প্রথমদিকে পুলিশ তদন্ত করলেও পরে অনেকদিন তদন্তকাজ সুনিপূণ ভাবে করার লক্ষে পুলিশ ব্যুারো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)কে হস্তান্তর করা হয়।

Share this post

PinIt
scroll to top
error: কপি করা নিষেধ !!
bahis siteleri