buy Instagram followers
kayseri escort samsun escort afyon escort manisa escort mersin escort denizli escort kibris escort rize escort sinop escort usak escort trabzon escort

টেকনাফে গুলিতে সাবেক সেনা কর্মকর্তা নিহতের ঘটনায় বাহারছড়ার সব পুলিশ প্রত্যাহার

sinha-armyRt-and-leaqot-si-police.jpg

পুলিশের গুলিতে নিহত অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা রাশেদ খান (বাঁয়ে) ও তাকে গুলি করা পুলিশ পরিদর্শক লিয়াকত আলী। ছবি : সংগৃহীত

তোফায়েল আহমদ,কালের কন্ঠ(২ আগস্ট) :: বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মো. রাশেদ হত্যার ঘটনায় পুলিশের টেকনাফের বাহারছড়া তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ ইন্সপেক্টর (আইসি) লিয়াকত আলীসহ কেন্দ্রের সকল সদস্যকে ক্লোজড করা হয়েছে।

রবিবার তাদেরকে ক্লোজড করে জেলা পুলিশ লাইনে নিয়ে আসা হয়েছে। পুলিশের ওই তদন্ত কেন্দ্রে পরিদর্শক লিয়াকত আলীসহ ২১ জন কর্মকর্তা ও কনস্টেবল রয়েছেন।

শনিবার রাত ও রবিবার সকালে বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের সকল সদস্য কক্সবাজার জেলা পুলিশ লাইনে এসে যোগ দেন।

এর আগে অবশ্য ঘটনার রাতেই উক্ত তদন্ত কেন্দ্রের আইসি পরিদর্শক লিয়াকত আলীকে কেন্দ্র থেকে জেলা পুলিশ লাইনে নিয়া আসা হয়।

পুলিশের তদন্ত কেন্দ্রটি তাৎক্ষণিক খালি হয়ে পড়ায় টেকনাফ থানার অরুণ সরকার নামের একজন উপ-পরিদর্শক রবিবার বিকাল থেকে বাহারছড়া তদন্ত কেন্দ্রে অবস্থান করছেন। সেই সঙ্গে আর্মস ব্যাটালিয়ানের কয়েকজন সদস্য তদন্ত কেন্দ্রটি পাহারা দিচ্ছেন।

এ ঘটনা তদন্তে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) মো. শাজাহান আলিকে প্রধান ও কক্সবাজারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ও রামু সেনানিবাসের জিওসির একজন প্রতিনিধিকে সদস্য করে গত ১ আগস্ট তদন্ত কমিটি গঠন করে দেওয়া হয়েছে।

এদিকে এ ঘটনার বিষয়ে অবহিত হতে পুলিশের চট্টগ্রাম রেঞ্জের এডিশনাল ডিআইজি (অপারেশন্স এন্ড ক্রাইম) জাকির হোসেন বর্তমানে কক্সবাজার অবস্থান করছেন।

অপরদিকে আজ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল সাংবাদিকদের বলেছেন, পুলিশের গুলিতে টেকনাফে সাবেক সেনা সদস্য নিহত হওয়ার ঘটনাটি তদন্তে গঠিত কমিটি নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই প্রতিবেদন দেবে। সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

জানা যায়, মেজর (অব.) রাশেদ গত ৩ জুলাই ঢাকা হতে ‘জাস্ট গো’ নামে একটি ইউটিউব চ্যানেলের জন্য একটি ট্রাভেল ভিডিও তৈরির জন্য কক্সবাজারে যান। তার সঙ্গে স্টামফোর্ড ইউনিভার্সিটির ফিল্ম এন্ড মিডিয়া বিভাগের তিনজন শিক্ষার্থীও যান। তারা প্রায় এক মাস যাবত কক্সবাজারের স্থানে শুটিং সম্পন্ন করেন। গত ৩১ জুলাই সঙ্গীয় সিফাতকে নিয়ে শামলাপুর অঞ্চলের পাহাড়ি এলাকায় যান। এই সময় মেজর (অব.) রাশেদ ফুল হাতা কম্ব্যাট গেঞ্জি, কম্ব্যাট ট্রাউজার এবং ডেজার্ট বুট পরিহিত ছিলেন। রাতের শুটিং শেষে রাত সাড়ে আটার দিকে তারা দুইজন পাহাড় থেকে নামার সময় স্থানীয় দুইতিনজন জন ব্যক্তি তাদের দেখে ডাকাত সন্দেহে পুলিশকে অবহিত করে।

মেজর (অব.) রাশেদ সিফাতকে নিয়ে পাহাড় থেকে নেমে নিজস্ব প্রাইভেট কারযোগে মেরিন ড্রাইভ হয়ে কক্সবাজারের উদ্দেশে রওয়ানা করে। শামলাপুরের পূর্বে বিজিবি চেকপোস্টে তাদেরকে তল্লাশি করার জন্য থামানো হয় এবং পরিচয় প্রাপ্তির পর ছেড়ে দেয়া হয়। রাত ৯টার দিকে শামলাপুর পুলিশ চেকপোস্টে আসার পর পূর্ব হতে ডাকাত সন্দেহে অবহিত এসআই লিয়াকত তার সঙ্গীয় ফোর্সসহ তাদের থামান। মেজর (অব.) রাশেদ গাড়ি থামিয়ে তাদেরকে পরিচয় প্রদান করলে প্রথমে তাদেরকে গাড়ি থেকে নামতে বলা হয়। সিফাত হাত উচু করে গাড়ি থেকে নেমে পেছনের দিকে যান। মেজর (অব.) রাশেদ গাড়ি থেকে হাত উচু করে নামার পরপরই এসআই লিয়াকত তাকে লক্ষ্য করে তিন রাউন্ড গুলি করেন।

বিশ্বস্ত সূত্র থেকে জানা যায়, এসআই লিয়াকত কোনরুপ কথাবার্তা না বলেই গাড়ি থেকে নামার পরপরই মেজর (অব.) সিনহাকে লক্ষ্য করে গুলি করেন এবং সিফাতকে আটক করে বাহারছড়া তদন্ত কেন্দ্রে নিয়ে যায়।

সূত্রটি জানায়, গুলি করার পর স্থানীয় জনগণ এবং সার্জেন্ট আইয়ুব আলী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে রাত সাড়ে ৯টার দিকে মেজর (অব.) রাশেদকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় দেখতে পান। সার্জেন্ট আইয়ুব আলী ঘটনার ভিডিও করতে চাইলে পুলিশ তার পরিচয় জানতে চায়। পরিচয় দেয়ার পরও পুলিশ তার নিকট থেকে মোবাইল ফোন এবং পরিচয়পত্র কেড়ে নেওয়া হয়। রাত ৯টা ৪৫ মিনিটের দিকে পুলিশ কর্তৃক একটি মিনি ট্রাক ঘটনাস্থলে আনা হয় এবং রাত ১০টার দিকে মিনি ট্রাকটি মেজর (অব.) রাশেদকে নিয়ে কক্সবাজার সদর হাসপাতালের উদ্দেশে রওয়ানা করে। প্রায় এক ঘণ্টা ৪৫ মিনিট পর ট্রাকটি সদর হাসপাতালে পৌঁছালে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

Share this post

PinIt
izmir escort bursa escort Escort Bayan
scroll to top
en English Version bn Bangla Version
error: কপি করা নিষেধ !!
bahis siteleri